ঢাকা, , ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০

মৃত্যু গুঞ্জন উড়িয়ে জনসম্মুখে কিম

টাইমসনিউজটোয়েন্টিফোর.কম

Wednesday,26 August 20 04:34:50

মৃত্যু গুঞ্জন উড়িয়ে দিয়ে আবারও জনসম্মুখে এলেন উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উন। আজ বুধবার করোনা ভাইরাস ও দেশটির দিকে ধেয়ে আসা সম্ভাব্য টাইফুন ‘ভাবী’ মোকাবিলায় তার সরকারের ঊর্ধ্বতন ব্যক্তিবর্গকে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি।

গত কয়েকদিন ধরে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলোতে কিম ‘কোমায় আছেন’ এমন খবর প্রকাশিত হয়। এর আগে তার ‘মৃত্যু হয়েছে’ বলেও বেশ কয়েকটি সংবাদ প্রকাশ হয়। সেসব গুঞ্জন উড়িয়ে দিয়ে আজ প্রকাশ্যে আসলেন কিম।

উত্তর কোরিয়ার সরকার নিয়ন্ত্রিত সংবাদমাধ্যম কেসিএনএ’র খবরে টাইফুন ‘ভাবী’ মোকাবিলায় কিম সরকারের ঊর্ধ্বতন ব্যক্তিবর্গকে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে নির্দেশনা দিয়েছেন বলে প্রচার করা হয়। এ ছাড়া ক্ষমতাসীন ওয়ার্কার্স পার্টির সভায় করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি নিয়েও তিনি দিক নির্দেশনা দিয়েছেন বলে জানানো হয়।

উত্তর কোরিয়ার আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, চলতি সপ্তাহে টাইফুন ‘ভাবী’ আঘাত হানতে পারে। এর প্রভাবে কয়েক দিন ধরে বৃষ্টিপাত হচ্ছে দেশটিতে।

এর আগে গত শুক্রবার দক্ষিণ কোরিয়ার সাবেক এক মন্ত্রী কোরিয়া হেরাল্ডকে বলেন, চীনের অজ্ঞাত একটি সূত্র তাকে জানিয়েছে কিম কোমায় আছেন। তবে তার এখনো মৃত্যু হয়নি। এরপর গত কয়েক দিন ধরে যুক্তরাজ্যের মিরর ও যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক পোস্টসহ আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হচ্ছিল, কিমের স্বাস্থ্য ভালো নেই। মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে তার।

কিছুদিন আগে বোন কিম ইয়ো জংয়ের হাতে বৈদেশিক সম্পর্ক নিয়ন্ত্রণসহ আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ বাড়তি দায়িত্ব দেওয়ার কারণে কিমের এবারের মৃত্যুর গুঞ্জন বেশি জোরালো ছিল।

সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়ার প্রাক্তন প্রেসিডেন্টের সহযোগী ও কূটনীতিক চ্যাং সং মিন দাবি করেন, ‘আমার কাছে খবর কিম জং উন কোমায় রয়েছেন।’ এরপরই জোর চাঞ্চল্য দেখা দেয়। উত্তর কোরিয়ার এই শাসকের শারীরিক অবস্থা নিয়ে লেখালেখি শুরু হয়ে যায়। তবে কোমায় থাকলেও কিমের ‘জীবিন শেষ হয়নি’ বলে জানিয়েছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ার কূটনীতিক।

উল্লেখ্য, এর আগেও কিমের মত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়েছিল আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলোতে। কিন্তু তিনি সংবাদমাধ্যমের সামনে হাজির হন। একইভাবে সব গুঞ্জনকে উড়িয়ে দিয়ে এবারও তিনি হাজির হলেন।  

পাঠকের মন্তব্য