ঢাকা, , ২৮ অক্টোবর, ২০২০

নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষার সুযোগ নেই : নাসিম

Wednesday,25 October 17 11:57:58

নির্বাচনকালীন সরকার বা তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যাবস্থা নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার আর কোনো সুযোগ নেই বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

তিনি বলেছেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকার একটি মীমাংসিত বিষয়। এটা নিয়ে কথা বলে লাভ নেই। সংবিধান অনুযায়ী আগামী নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যাবস্থা নিয়ে অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষা হয়েছে, আর সুযোগ নেই।

আজ বুধবার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) উদ্যোগে দু’দিনব্যাপী স্বাস্থ্য ক্যাম্পের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

‘নভো নরডিক্সের’ সহযোগিতায় এ ক্যাম্পে প্রথম দিন ডায়াবেটিকস এবং দ্বিতীয় দিনে চোখের চিকিৎসা দেয়া হবে।

ঢাকা রিপোর্টারস ইউনিটির সভাপতি শাখাওয়াত হোসেন বাদশার সভাপতিত্বে সভায় বাংলাদেশ ডায়াবেটিকস সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এ কে আজাদ, কমিউনিটি ক্লিনিকের প্রকল্প পরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল হাসেম খান, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাধারণ সম্পাদক মুরসালিন নোমানী, সাংগঠনিক সম্পাদক জিলানী মিল্টন, ন্যাশনাল হেলথ কেয়ার নেটওর্য়াকের সিইও ডা. এম এ সামাদ, বারডেম হাসপাতালের অ্যান্ডোক্রিনোলোজি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা. ফারুক পাঠান, নভো নরডিক্সের ম্যানেজিং ডিরেক্টর আনন্দ শেঠি প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সংগঠনের কার্যনির্বাহী সদস্য নুরুল ইসলাম হাসিব।

বিএনপি নেতাদের উদ্দেশে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, সংবিধানের বাইরে আমরা যাবো না, এটা নিয়ে কথা বলে লাভ নেই। এর জন্য অহেতুক মাঠ গরম করবেন না। দশ বছর আগে যা হয়েছে এখন আর তা হবে না।

বিএনপিকে আগামী নির্বাচনের প্রস্তুতি নেয়ার আহবান জানিয়ে নাসিম বলেন, নির্বাচনকালীন সরকার বা তত্ত্ববাধায়ক সরকারের দাবিতে আন্দোলন করে কোনো লাভ নেই। জনগণের প্রতি বিশ্বাস রাখুন। জনগণ যাদের যোগ্য মনে করবে তাদের ভোট দিয়ে বিজয়ী করবে। আমরা যদি ভোটে হেরে যাই মেনে নেব।

রোহিঙ্গা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গাদেরকে মায়ের মমতায় আশ্রয় দিয়েছেন। যে কারণে তাকে মাদার অব হিউম্যানিটি বলা হচ্ছে। আরাকানে কোনো স্কুল নেই, চিকিৎসা কেন্দ্র নেই। যে কারণে তারা আমাদের দেশে ঢুকছে শরীরে বিভিন্ন ধরনের রোগ নিয়ে। আমরা স্বাস্থ্য ক্যাম্প স্থাপনের মাধ্যমে রোহিঙ্গাদের চিকিৎসা দিচ্ছি। বিভিন্ন রোগের টিকা দিচ্ছি, যা তারা আগে পায়নি।

পাঠকের মন্তব্য